প্রশ্নের উত্তর ।। আবু সাঈদ দেওয়ান সৌরভ

#1
sumaiyamunirablog_1218113543_1-couple-jpg.500

আমাদের সম্পর্কের শেষ পরিণতি কি?

আমাকে প্রশ্ন করা হয়েছিল। আমি উওর দিতে পারিনি, আজ আমার কাছে উওর আছে কিন্তু সে অনেক দুরে।

এই মূহুর্তে আমার কাছে সেই প্রশ্নের উওর,
মানুষ অনেক কিছুরই শেষ পরিণতি সম্পর্কে জানে না তবু মানুষ বেঁচে থাকে, ভাল ভাবেই বাচঁতে চেষ্টা করে। প্রতিটি মানুষ তার জীবনের শেষ পরিণতি কি হবে? জানে না তবুও ভালবাসে, ঘর বাঁধে, সুখে-শান্তিতে সংসার ও জীবন কাটাতে চায়, সবাই কিন্তু পারে না, তাই বলে কি সবাই ভালবেসে সংসার বাধাঁ ছেড়ে দিয়ে হতাশায় আত্মহত্যা করবে। পৃথিবীর প্রায় সকল মানুষই জীবনে কোন না কোন সময়ে প্রেম করে সবাই কি সফল হয়? সবাই কি প্রিয়জনের সাথে ঘর বাধঁতে পারে? বেশি সংখ্যক লোকই পারে না। এজন্য মানুষ প্রেম করা ছেড়ে দেয় না বরং প্রতিদিনই মানুষ প্রেমে পড়ে, বারবার প্রেমে পড়ে, কখনো মানুষের, কখনো প্রকৃতির, কখনো অর্থ-সম্পদের, কখনো আবার এমন অদ্ভুত জিনিসের বা বস্তুুর প্রেমে পড়ে যা অসম্ভব অলোকিক।

ফুল পৃথিবীর সুন্দর জিনিষের মধ্যে একটি এবং প্রায় সকলেরই প্রিয়। ফূল যখন ফোঁটে তখন সুগন্ধি ও সৌন্দর্য ছড়ায় কিন্তুু মানুষ ফুল ছিঁড়ে ফুল দিয়ে ঘর সাজায়, ফুল নিয়ে শোবার ঘরে সাজিয়ে রাখে অবশেষে ফুলের শেষ পরিণতি আবর্জনায়। তারপরও মানুষ ফুলের গাছ লাগায়, যর্ন্ত করে বড় করে তোলে।

মানুষের জীবনে দেহ সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ন অংশ গুলোর মধ্যে একটি। দেহের আরাম ও তৃপ্তির জন্য কত কিছুই না করে। দেহের সৌন্দর্য বৃদ্ধির জন্য পৃথিবীর একপ্রান্ত থেকে আরেক প্রোন্তে ছুটে যায়, দামী প্রসাধনী ব্যবহার করে, দেহের চিকিৎসার জন্য কষ্টার্জিত অর্থের ব্যয় করতেও দ্বিধাবোধ করে না। আবার অনেকেই দেহের প্রেমে পড়ে সব লুটিয়ে দেয় বিবেক, বুদ্ধি, আত্মসম্মান, মর্যদা এবং অনেক সময় শেষ করে দেয় নিজের প্রাণ। অথচ যে দেহের জন্য এত মহা আয়োজন সেই দেহেরও একদিন স্থান হয় মাটির নিচে কিংবা আগুনে জ্বলে বিভৎস অবস্থায় ধংস হয়। তারপরও কিন্তু মানুষ দেহের যর্ন্ত করে, নিজের দেহকে ভালবাসে, দেহকে বিভিন্ন উপায়ে সাজিঁয়ে তোলে।

আমাদের সম্পর্কের শেষ পরিণতি আমি জানি না, জানতেও চাই না, বুঝতেও চাই না, যা হয় হবে। শুধূ বলবো ভালবাসি তোমাকে।

শেষ পরিণতি হিসাবে যদি কংলঙ্কিত জীবনের বোঝা বইতে হয়, আমি রাজি... রাজি... রাজি
 
Last edited by a moderator:

বর্ণমালা এন্ড্রয়েড এপ

ফেসবুকে বর্ণমালা ব্লগ

নতুন যুক্ত হয়েছেন

Top